লেটেস্ট খবরবিনোদনভাইরাললাইফ স্টাইলরেসিপি

Debolina Dutta: সাড়ে সাত বছরের বিবাহিত জীবনে দেবলীনা-তথাগতর কেন সন্তান এল না? সাক্ষাৎকারে জবাব দিলেন অভিনেত্রী দেবলিনা দত্ত

Published on:

WhatsApp Group Join Now

Debolina Dutta: টলিপাড়ায় একসময় জনপ্রিয় ছুটি ছিল তথাগত মুখার্জি (Tathagata Mukherjee) এবং দেবলীনা দত্ত (Debolina Dutta)। কাজের সূত্রে দুজনের আলাপ, প্রথমে প্রেম তারপর সাত বছরের বৈবাহিক সম্পর্ক। কিন্তু তারপর আর একসাথে থাকা হয়নি তাদের। শোনা যায় তৃতীয় ব্যক্তির কারণেই তাদের মধ্যে বিচ্ছেদ হয়। যদি এ কথা কারোরই অজানা নয়। তবে দীর্ঘ সাত বছরের বৈবাহিক সম্পর্কে তাদের মধ্যে কেন কোন সন্তান আসেনি? তাই নিয়ে এখনো প্রশ্ন ওঠে। এই নিয়ে দীর্ঘ কয়েক বছর পর সাক্ষাৎকারে মুখ খুললেন অভিনেত্রী দেবলীনা।

জনপ্রিয় এক সংবাদমাধ্যমের সাক্ষাৎকারে দেবলীনা (Debolina Dutta) জানিয়েছেন এই নিয়ে কথা বলতে তার কোন দ্বিধা নেই, বরং স্বাচ্ছন্দে কথা বলতে পারেন তিনি। স্বামী তথাগতর সঙ্গে অভিনেত্রী বিবৃতি চট্টোপাধ্যায়ের সম্পর্কের কথা জানতে পেরে দেবলীনা নিজের জীবনটা তাঁর থেকে আলাদা করে নিয়েছিলেন। কোনরকম রাগ বা দুঃখ পুষে রাখেনি নিজের মনে।

অভিনেত্রী জানিয়েছেন, “তথাগতর সঙ্গে কাটানো ন’টা বছর আমার জীবনের সবচেয়ে মধুর সময়। এটা আমার অস্বীকার করার কোনও জায়গাই নেই।” আর যদি সন্তান থাকত? তা হলেও কি তাঁদের পথ আলাদা হত? “হত”, সাফ বললেন দেবলীনা। সঙ্গে এও বললেন, “কে বলেছে আমাদের সন্তান নেই? আছে তো? আমরা সেই সন্তানদেরও কো-প্যারেন্টিং করি। আমাদের বায়োলজিক্যাল সন্তান থাকলেও সেটাই করতাম।”

দেবলীনা জানান তাদের বাড়িতে তথাগত এবং তার সন্তান রয়েছে। যার কারণে আলাদা করে সন্তান নেওয়ার প্রয়োজন পড়েনি। নিশ্চয়ই ভাবছেন কাদের কথা বলছেন অভিনেত্রী? সন্তানদের নাম চেরি-মোগলি-বাঘিরা। এরা প্রত্যেকেই চারপেয়ে সারমেয়। এরাই দেবলীনা-তথাগতর সন্তান। অভিনেত্রী বলেছেন, “ওরাই তো আমাদের সন্তান। ওদের কারণেই আমরা সন্তান জন্ম দেওয়ার ক্রেভিংস ফিল করিনি। চারপেয়ে সন্তানরাই সেই অভাব দূর করেছে।

WhatsApp Group Join Now

আরও পড়ুন: Border 2: বর্ডার ২-এর ঘোষণা সানি দেওয়লের! ২৭ বছর পর পর্দায় কামব্যাক করছেন মেজর কুলদীপ!

কিন্তু যদি তথাগত চাইত, আমি সন্তানের জন্ম দিতাম।” তিনি স্পষ্টই জানিয়েছেন, তাঁর কিংবা তথাগতর নিজের জন্য কোনও সন্তানের প্রয়োজন পড়েনি কোনওকালে। অভিনেত্রী আরো জানান “আমরা নিজেদের জন্য নয়, কিন্তু একে-অপরের ইচ্ছাপূরণ করতেই সন্তানের জন্ম দিতাম। আমার ইচ্ছেতে তথাগত রাজি হত। আর তথাগতর ইচ্ছাতে আমি রাজি হতাম। আমাদের কারওই সেই ইচ্ছা জাগেনি। তাই একে-অপরের জন্য সন্তান জন্ম দেওয়ার প্রয়োজনীয়তাও পড়েনি। কিন্তু যদি আমাদের সন্তান থাকত, তাকে সুন্দর করে মানুষ করতাম আমি আর তথাগত। আলাদা-আলাদা থেকেও। এটুকু বলতে পারি।”

About Author
Ankana Chowdhury

নমস্কার আমার নাম অঙ্কনা চৌধুরী। আমি বিগত দু'বছর ধরে ডিজিটাল মিডিয়াতে কাজের সঙ্গে যুক্ত রয়েছি। এই দু বছরে আমি বিভিন্ন ধরনের বিষয়ের উপরে জেনারেল নিউজ লিখেছি। এবং বর্তমানে আমি অনেকটাই কাজ শিখে এই জেনারেল নিউজ লেখায় নিজেকে সাবলীল করে তুলেছি। এই কয়েক বছরে আমার অভিজ্ঞতা ভীষণই ভালো।