লেটেস্ট খবরবিনোদনভাইরাললাইফ স্টাইলরেসিপি

Zee Bangla Saregamapa: কপাল পুড়ল সরেগামাপার! শো শুরুর আগেই কারচুপির অভিযোগ এক প্রতিযোগীর!

Published on:

Zee Bangla Saregamapa: বাংলার কয়েকটি জনপ্রিয় রিয়েলিটি শো এর মধ্যে জি বাংলার (Zee Bangla) সারেগামাপা (Saregamapa) অন্যতম। দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে প্রতিভা খুঁজে আনা হয় এই শোতে। যারা গান নিয়ে নিজের জীবন গড়তে চায় তাদের জন্য এই শোটি একেবারেই উপযুক্ত। নিজের স্বপ্ন পূরণ করার সুযোগ পায় তারা। সেই শো এরই অডিশন চলছে এই মুহূর্তে। তার মাঝেই বড়সড় অভিযোগ উঠল এই শো এর বিরুদ্ধে এবং এই অভিযোগ উঠেছে প্রাক্তন প্রতিযোগী গৌরব সরকারের বিরুদ্ধে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

রবিবার কলকাতার একটি কলেজে এই রিয়েলিটি শো এর অডিশন রাখা হয়েছিল। সেইখানেই ঘটে বিপত্তি। ছোট পর্দায় শুরু হওয়ার আগেই এমন বিপত্তির জেরে বিব্রত হয়েছেন দর্শক মহল। এই শো এর ভক্ত নয় বা এই শো দেখেন না এমন খুব কম জনই রয়েছেন। প্রত্যেক বছরই নতুন নতুন প্রতিভা নিয়ে এই শো উপস্থাপিত হয় এবং উপহার দেয় সুন্দর সুন্দর গান। নতুন নতুন শিল্পীদের আবির্ভাব ঘটে যা সঙ্গীত জগতকে সমৃদ্ধ করে।

A competitor Complained about saregamapa Audition:

জানা গেছে এই শোতে অডিশন দিতে আসা এক প্রতিযোগী ছিলেন বিজয় কৃষ্ণ সাহা। তিনি অভিযোগ তুলেছেন প্রাক্তন প্রতিযোগী গৌরব সরকারের বিরুদ্ধে। তিনি জানিয়েছেন এই শুরুতেই অডিশন দিতে আসায় হেনস্থা শিকার হতে হয়েছে তাকে। তিনি অভিযোগ করেছেন তিনি যখন গান গাইতে শুরু করেন তখন ব্যাঙ্গাত্মক হাসি হাসেন গৌরব। পোষ্টের মাধ্যমে ঐ ব্যক্তি জানান, “ওঁর যে আচরণ দেখলাম, তা একজন সাধারণ ভদ্র-সভ্য মানুষের গ্রহণযোগ্য হবে বলে মনে হয় না।

সময়ের কথা মাথায় রেখে আমি গানটির আলাপ গাইনি, শুধু মুখরার কুড়ি পঁচিশ সেকেন্ড গাওয়ার পরই আমাকে থামিয়ে দেওয়া হল। আমি গাইবার সময়ে উনি এতটাই উদাসীন ছিলেন যে, গানটি মনযোগ সহকারে শোনার পরিবর্তে ওখানে বসে থাকা আর একজনের সঙ্গে হাসাহাসি করছিলেন যা, মনে হল কিছুটা ব্যঙ্গাত্মক।” তিনি আরও লেখেন “এক মিনিটের মধ্যেই সবার অডিশন নেওয়া হয়ে যাচ্ছিল! যাই হোক, কলকাতা অডিশনের এই অভিজ্ঞতা আমার জন্য বড়ই তিক্ত ও বেদনাদায়ক।” যদিও এই পোস্ট কিছুটা ভাইরাল হওয়ার পর থেকে ডিলিট করে দেওয়া হয়। কিন্তু এই পোষ্টের ভাইরাল হওয়ার পর থেকেই নেটিজেনদের মধ্যে সমালোচনার শুরু হয়(Saregamapa)

আরও পড়ুন: Abhishek Chatterjee Birthday: প্ৰিয় রেস্তোরাঁর ডাব চিংড়ি, বিরিয়ানি! অভিষেকের ছবি আঁকড়ে কেক কেটে জন্মদিন পালন স্ত্রী-কন্যার

তবে এই পরিস্থিতির পর গৌরব সরকারের চুপ করে থাকেননি, তিনিও সোশ্যাল মাধ্যম তথা ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন এবং সেখানে তিনি লেখেন, “নমস্কার! আমি গৌরব সরকার বলছি, প্রথমত এই কার্ড আমার দেওয়া নয়, কারণ আমি প্রত্যেকটি কার্ড সই সহকারে দিয়েছি আর আমার সাথে যিনি কার্ডে অংশগ্রহণকারীদের নাম লিখছিলেন এটা তার হাতের লেখাই নয়। আমি ঢাকুরিয়া রায় পাড়াতে থাকি ১এ বেচু ডক্টর লেনে বিনায়ক আবাসনে, আপনাদের যাদের মনে হয় আপনাদের গান ভালো হওয়া সত্বেও আপনাদের নেওয়া হয়নি আপনারা আমার বাড়ি এসে লাইভ ভিডিও করে অডিশন নিয়ে সবাইকে দেখান, এতটা অধিকার দিয়ে রাখলাম আপনাদের প্রত্যেককে, এতটাই আমি আত্মবিশ্বাসী নিজের সিলেকশন নিয়ে।

আরও পড়ুন: Soham Chakraborty: ভোট প্রচার করতে এসে গুরুতর অসুস্থ সোহম! ভর্তি হাসপাতালে! কী হয়েছে অভিনেতার?

আমাকে ভুল প্রমাণিত করলে আমি সঙ্গীত ছেড়ে দেবো চিরকালের মতো। আমি গানবাজনার বিষয়ে এতটাই সৎ যে নিজে কোনদিনও এক ফোঁটা সুবিধা কারো কাছে চাইনি আর কাউকে সুবিধা পাইয়েও দিইনা। কাল আমার বহু পরিচিত মানুষ আমার ঘরে অডিশন দিয়েছে। তার মধ্যে ৯৯% ই সিলেক্টেড হয়নি, আবার আমার সম্পূর্ণ অপরিচিত বহু মানুষ সিলেক্টেড হয়েছে সম্পূর্ণরূপে তাদের প্রতিভার নিরিখে। কারো বিষয়ে কিছু বলার আগে জেনে শুনে এবং প্রমাণসহ কথা বলুন, নাহলে নিজেদেরই দিনের শেষে ঠকতে হবে। ভালো থাকুন সক্কলে আর অপেক্ষায় রইলাম যারা আমায় ভুল বললেন, দোষারোপ করলেন তারা নিশ্চিতরূপে আমার বাড়ি এসে ফেসবুক লাইভ সহকারে অডিশন দিয়ে যাবেন।” এই ঘটনার পর থেকেই কে ঠিক কে ভুল সেই নিয়ে বিভিন্ন আলোচনার শুরু হয়েছে দর্শকমহলে(Saregamapa)

About Author
Neha Basu

বিগত প্রায় ২ বছর ডিজিটাল মিডিয়ার কাজের সঙ্গে যুক্ত। যে কোনো ধরনের জেনারেল নিউজ লেখায় পারদর্শী।